রবিবার, মার্চ ৭, ২০২১
নিউইয়র্কে ৩ বাংলাদেশিসহ ২৬৯ জন করোনায় আক্রান্ত
১৬মার্চ,সোমবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: নিউইয়র্ক সিটিতে তিন বাংলাদেশিসহ ২৬৯ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। এর মধ্যে এক নারীসহ মারা গেছেন দু জন। সেই নারীর বয়স ৮২ বছর এবং পুরুষের ৬৫ বছর। এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে ৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনা আক্রান্ত হয়ে। আর এখন পর্যন্ত দেশটিতে প্রাণঘাতী এই ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছে ২ হাজার ৭৯৪ জন মানুষ। জানা গেছে, এক সপ্তাহ আগে থেকে ব্রুকলীনের হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন এক বাংলাদেশি নারীসহ দু জন। আরেকজন রয়েছেন ম্যানহাটানের হাসপাতালে, তিনি গ্রীনক্যাব চালাতেন। সম্প্রতি সৌদি আরব থেকে ওমরা পালন শেষে নিউইয়র্কে ফিরেই অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন মধ্যবয়সী এক বাংলাদেশি। হাসপাতালে নেয়ার পর তাকে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত করা হয়। আক্রান্ত নারী তার স্বামীর সঙ্গে ম্যানহাটানে একটি ফুটকার্টে সহযোগিতা করতেন। এদিকে, করোনা ভাইরাসের প্রকোপ ক্রমশ ছড়িয়ে পড়ায় নিউইয়র্ক সিটির বাংলাদেশি অধ্যুষিত এলাকাগুলোও জনমানবশূন্য হয়ে পড়েছে। গত শুক্রবার জুমার নামাজ অত্যন্ত সংক্ষেপে এবং তুলনামূলকভাবে কম মুসল্লির অংশগ্রহণে সম্পন্ন হয়। নিউইয়র্কে বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল সাদিয়া ফয়জুননেসা জানান, তিনি সামগ্রিক পরিস্থিতির ব্যাপারে প্রবাসীদের সঙ্গে যতটা সম্ভব যোগাযোগ রক্ষা করছেন। কনস্যুলার সার্ভিসের জন্য অফিসে না এসে অনলাইন অথবা টেলিফোনে সকলকে যোগাযোগের পরামর্শ দিয়েছেন। বিশেষ জরুরি কাজ সম্পাদনের জন্যে অবশ্য কন্স্যুলেট অফিস খোলা রাখা হচ্ছে। এছাড়া নিউইয়র্ক স্টেট অ্যাসেম্বলির স্পিকার কার্ল ই হিস্টি রবিবার সকালে জানান, ব্রুকলীন থেকে নির্বাচিত দুই ডেমক্র্যাট-অ্যাসেম্বলির হেলেন উইনস্টাইন (৬৭) এবং চার্লস ব্যারন (৬৯) করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। নিউইয়র্কে শনিবার রাতে ৬১৩ জন আক্রান্ত হবার খবর দিয়েছে স্টেট গভর্নরের অফিস।
করোনা আতঙ্কে আল-আকসা মসজিদ বন্ধ ঘোষণা
১৫মার্চ,রবিবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে মুসলমানদের প্রথম কিবলাহ ও তৃতীয় পবিত্র স্থান আল-আকসা মসজিদ সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আজ রোববার জেরুজালেমের ওয়াকফ কমিটি এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। আল জাজিরা জানায় করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সাবধানতার অংশ হিসেবে এ পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে বলে ওয়াকফ কর্তৃপক্ষে জানিয়েছে। তবে মসজিদের বাইরের অংশ ইবাদতের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। মসজিদের পরিচালক ওমর কিসওয়ানি বলেন, ইসলামিক ওয়াকফ কমিটি করোনাভাইরাস বিস্তার রোধে সুরক্ষামূলক ব্যবস্থা হিসেবে পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত আল আকসা মসজিদের অভ্যন্তরে নামাজের স্থানগুলো বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তবে মসজিদের প্রাঙ্গণে নামাজ আদায় করা যাবে বলে ওয়াকফ কমিটি থেকে জানানো হয়। এদিকে ফিলিস্তিনের ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় নাগরিকদের ঘরে বসে প্রার্থনার আহ্বান জানিয়েছে। এক বিবৃতিতে ধর্ম মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, জনগণের মধ্যে যোগাযোগ কমানো এবং যতটা সম্ভব জনসমাগম কমিয়ে আনার জন্য স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সুপারিশের আলোকে আমরা ফিলিস্তিনের জনগণকে ঘরে বসে প্রার্থনা করার আহ্বান জানাচ্ছি।
সব আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বাতিল করল সৌদি আরব
১৪মার্চ,শনিবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনা ভাইরাসের কারনে আগামীকাল রোববার থেকে সকল আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বাতিল করেছে সৌদি আরব। আজ শনিবার দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয় এ ঘোষণা দিয়েছে। আগামী দুই সপ্তাহ পর্যন্ত এ বাতিল আদেশ কার্যকর থাকবে। খবর আরব নিউজর। জানা যায়, দেশটিতে গতকাল শুক্রবার নতুন ২৪ জনসহ এ পর্যন্ত ৮৪ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। দেশটির সংবাদ সংস্থার বরাত দিয়ে আরব নিউজ বলছে, আগামীকাল রোববার সকাল ১১টা থেকে আগামী দুই সপ্তাহের সকল আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে। তবে জরুরী অবস্থা বিবেচনায় বিশেষ কারনে কিছু কিছু ফ্লাইটের বিষয়ে ছাড় দেওয়া হতে পারে। এ সময়ের মধ্যে যেসব নাগরিকরা দেশটিতে ফিরতে পারবেন না, তাদের জন্য তা সরকারি ছুটি হিসেবে গণ্য করা হবে। সব আগমনকারীদের ক্ষেত্রে পরীক্ষা ও আইসোলেশনসহ সব ধরনের স্বাস্থ্য প্রক্রিয়ার আয়োজন করা হয়েছে। এদিকে ইউরোপ ও আমেরিকায় নভেল করোনা ভাইরাসের প্রকোপ দ্রুত বাড়তে থাকায় মাত্র চার দিনে আরও এক হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। বিশ্বে মৃতের সংখ্যা পৌঁছে গেছে প্রায় পাঁচ হাজারে। আড়াই মাসে মহামারীর আকার পাওয়া করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব বিশ্বের ১২৩টি দেশ ও অঞ্চলে আক্রান্তের সংখ্যা এক লাখ ৩২ হাজার ছাড়িয়ে গেছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
প্রাণচাঞ্চল্য ফিরছে করোনাভাইরাসের উৎসস্থল উহানে
১২মার্চ,বৃহস্পতিবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনাভাইরাসের প্রথম প্রাদুর্ভাব ঘটে চীনের উহান শহরে। পরে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়ে ভয়াবহ এই মহামারি ভাইরাস। তবে এবার উহান শহরে দিন দিন কমছে মৃত্যু এবং আক্রান্তের সংখ্যা। সপ্তাহখানেক ধরেই প্রাণচাঞ্চল্য ফিরতে শুরু করেছে দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে অবরুদ্ধ থাকা এই শহরে। ফলে শহরটির বেশ কয়েকটি সংস্থার অফিসও দ্রুত সময়ের মধ্যে খুলে দেয়ার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে চীন সরকার। গত জানুয়ারি মাসের শেষ দিক থেকে পুরো শহর অবরুদ্ধ করে ফেলা হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহানে মঙ্গলবার সফর করেন চীনের প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং। করোনা ছড়ানোর পর শহরটিতে প্রথমবারের মতো যান তিনি। করোনায় বিপর্যস্ত উহানে সাম্প্রতিক সময়ে নতুন করে আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা অনেক কমে গেছে। উহান ছাড়া হুবাইয়ের অন্য শহরগুলোয় কয়েক দিন ধরে নতুন কারও আক্রান্ত হওয়ার খবর মেলেনি। যদিও হুবেইয়ের উহান শহরেই করোনা আক্রান্তের সংখ্যা সর্বাধিক। সবচেয়ে বেশি প্রাণহানিও ঘটেছে এই শহরে। এই উহানও যাতে স্বাভাবিক ছন্দে ফিরতে পারে সেই প্রচেষ্টা শুরু হয়েছে ইতোমধ্যে। এ শহরে অবস্থিত বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সংস্থার অফিসগুলি প্রথমে খোলা হবে। তবে এখনি চালু হচ্ছে না হুবেইয়ের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। স্থানীয় প্রশাসন জানিয়েছে, আপাতত জাপানি গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থা হুন্ডা উহানে তাদের অফিস খুলেছে। ২০ মার্চের পরে আরও কিছু সংস্থা কাজ শুরু করবে। হুবেইয়ের অন্য শহরগুলির জনজীবন স্বাভাবিক হচ্ছে ধীরে ধীরে। তবে উহান এখনও চীনের অন্য শহরগুলো থেকে বিচ্ছিন্ন। চিনপিং সরকার ঘোষণা করেছে, কোনো দেশ থেকে কেউ বেইজিংয়ে এলেই তাকে বাধ্যতামূলকভাবে ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইনে রাখা হবে। অন্য দেশ থেকে নতুন করে এ ভাইরাস যেন চীনে না ঢুকতে পারে সে চেষ্টা চালানো হচ্ছে। চীনে করোনাভাইরাসের আক্রমণে মৃতের সংখ্যা ৩১০০ ছাড়িয়েছে। করোনাভাইরাসে বিশ্বে এখন পর্যন্ত ১ লাখ ২৬ হাজার ৩শ জন আক্রান্ত হয়েছে এবং ৪ হাজার ৬৩৩ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত ৬৮ হাজার ২৮৫ জন চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। বিশ্বের ১২৪টি দেশ ও অঞ্চলে করোনার প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে।
ব্রিটেনের স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত
১১মার্চ,বুধবার,আন্তর্জাতিক ডেস্কনিউজ একাত্তর ডট কম: যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাদাইন ডরিস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বিষয়টি নাদাইন ডরিস নিজেই জানিয়েছেন। বর্তমানে তিনি নিজের বাড়িতেই কোয়ারেনটাইনে রয়েছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে তাকে শনাক্ত করা হয়েছে। ব্রিটেনে তিনিই প্রথম সাংসদ, যিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হলেন। সে দেশে এখন পর্যন্ত ৩৮২ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং অন্তত ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে। জানা গেছে, গত সপ্তাহে কয়েকশ লোকের সঙ্গে মিশেছিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের সঙ্গে ডাউনিং স্ট্রিটে একটি সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি। পরে নাদাইন ডরিস শুক্রবার অসুস্থ হয়ে পড়েন এবং গতকাল মঙ্গলবার রাতে তার রোগ নির্ণয় করা হয়। আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে বৃহস্পতিবার বরিস জনসনের সঙ্গে ডাউনিং স্ট্রিটে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়ার পর বরিস জনসন ও তার বাগদত্তা কেরি সাইমন্ডসের সঙ্গে দশ নম্বরে একটি সংবর্ধনা অনুষ্ঠানেও অংশ নিয়েছিলেন। এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, আমি নিশ্চিত করতে পারি যে, করোনভাইরাসটির জন্য ইতিবাচক পরীক্ষা করেছি। ইংল্যান্ডের জনস্বাস্থ্য বিভাগ বিস্তারিত সন্ধান শুরু করেছে এবং আমার সংসদীয় এলাকায় তাদের পরামর্শগুলি নিবিড়ভাবে অনুসরণ করছে। আমি পিএইচই এবং অসাধারণ এনএইচএস কর্মীদের ধন্যবাদ জানাতে চাই, যারা আমাকে পরামর্শ এবং সহায়তা দিয়েছিলেন।
করোনায় ইতালিতে একদিনে মৃত্যু ৯৭ জনের, আক্রান্ত ১৭৯৭ জন
১০মার্চ,মঙ্গলবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: ইতালিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৪৬৩। উদ্ভুত পরিস্থিতিতে ইতালিজুড়ে যে কোনও জনসমাগমের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। সোমবার (৯ মার্চ) প্রধানমন্ত্রী গুইসেপ কোঁতের নির্দেশনাক্রমে এই ঘোষণা দেয় সরকারের নাগরিক সুরক্ষা বিভাগ। এদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছেন ১৭৯৭ জন, আর মৃত্যু হয়েছে ৯৭ জনের। এই আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা নিয়ে ইতালির সর্বত্র আতঙ্ক বিরাজ করছে। আতঙ্কের মধ্যে লকডডাউন অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন ইতালি প্রবাসী বাংলাদেশিরাও। ইতালির জরুরি স্বাস্থ্যসেবা দানের সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা ধারণা করছেন আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা আরও বাড়বে। তুলনামূলক তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে করোনাভাইরাসের উৎপত্তিস্থল চীনের পরেই সবচেয়ে ভয়াবহ অবস্থা ইউরোপের এই দেশটির। এর মধ্যেই ইতালির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে নাগরিকদের আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়ে দাবি করা হয়েছে, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ৭২৪ জন ইতোমধ্যেই চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে নিয়মিত জীবনে ফিরে গেছেন। এদিকে ইতালি সরকার এর আগে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে বেশ কিছু কঠোর পদক্ষেপ নেয়। তখন বলা হয়, মার্চের মাঝামাঝি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে সবগুলো স্কুল ও বিশ্ববিদ্যালয়। এছাড়াও, ইতালিয়ান ফুটবুল লিগ সিরি এর ম্যাচগুলো রোববার (৮ মার্চ) পর্যন্ত বিশেষ ব্যবস্থায় দর্শকশূণ্য স্টেডিয়ামে আয়োজিত হয়েছে। ইতালি জুড়ে পাবলিক ইভেন্ট এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেয়া হয়েছে নাগরিকদের। একে অপরের মধ্যে ১ থেকে ২ মিটার দূরত্ব বজায় রেখে, যতটুকু সম্ভব আলিঙ্গন, হ্যান্ডশেক এবং চুম্বন এড়িয়ে চলতে বলেছে দেশটির নাগরিক সুরক্ষা দফতর। করোনাভাইরাসের প্রভাবে অর্থনৈতিকভাবে বেশ ক্ষতির মুখে ইতালি। করোনাভাইরাস পরিস্থিতির উন্নয়ন না ঘটলে ব্যাপক অর্থনৈতিক ধসের ব্যাপারে সতর্ক করেছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা। ইতালিতে সব জনপ্রিয় এয়ারলাইন্সগুলো ফ্লাইট বাতিল করায় পর্যটন শিল্প মুখ থুবড়ে পড়েছে।
সৌদিতে রাজপরিবারের প্রভাবশালী তিন সদস্য আটক
০৭মার্চ,শনিবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক ,নিউজ একাত্তর ডট কম: সৌদি আরবে রাজপরিবারের তিন প্রবীণ প্রভাবশালী সদস্যকে আটক করা হয়েছে। এর মধ্যে বর্তমান বাদশাহর ভাইও রয়েছেন। তবে তাদের আটকের কারণ জানা যায়নি। যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে এই খবর প্রকাশ করেছে বিবিসি। আটকদের মধ্যে দুজনকে সৌদি আরবের খুবই প্রভাবশালী ব্যক্তি বলে ধরা হয়। তাদের আটকের সঙ্গে যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের সম্পর্ক রয়েছে। এর আগে ২০১৭ সালে ডজনখানেক রাজকীয় ব্যক্তিত্ব, মন্ত্রী ও ব্যবসায়ীকে যুবরাজের নির্দেশে রিয়াদের রিজ-কার্লটন হোটেলে আটক করে রাখা হয়। নতুন করে আটক হওয়া ব্যক্তিরা হলেন বাদশাহর ছোট ভাই প্রিন্স আহমেদ বিন আবদুল আজিজ, সাবেক যুবরাজ মোহাম্মদ বিন নায়েফ ও প্রিন্স নাওয়াফ বিন নায়েফ। এর মধ্যে ২০১৭ সালে মোহাম্মদ বিন নায়েফকে মোহাম্মদ বিন সালমানের নির্দেশে গৃহবন্দী করা হয়। এর আগে তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল জানায়, গার্ডরা রাজকীয়দের মুখোশ ও কালো পোশাক পরে আটক হওয়া ব্যক্তিদের বাড়ি যায়। সেখানে তল্লাশি চালায়।
করোনামুক্ত ছাড়পত্র নিয়ে বাংলাদেশসহ ১০ দেশের নাগরিকদের ঢুকতে হবে কুয়েতে
০৫মার্চ,বৃহস্পতিবার,আন্তর্জাতিক ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: করোনাভাইরাস ইস্যুতে এবার নড়েচড়ে বসলো কুয়েত প্রশাসন। ৮ মার্চ থেকে বাংলাদেশসহ দশ দেশের নাগরিকদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে কুয়েতে প্রবেশ করতে হবে। দেশটির সিভিল অ্যাভিয়েশন জানায়, করোনাভাইরাস মুক্ত সার্টিফিকেট ছাড়া কেউ কুয়েতে প্রবেশের চেষ্টা করলে ফিরতি ফ্লাইটেই তাকে দেশে পাঠিয়ে দেয়া হবে। বাংলাদেশসহ যে দশটি দেশ রয়েছে সেগুলো হলো- ফিলিপাইন, ভারত, মিশর, সিরিয়া, আজারবাইজান, তুরস্ক, শ্রীলঙ্কা, জর্জিয়া ও লেবানন। বিজ্ঞপ্তিতে পলিমারেজ চেইন রিঅ্যাকশন-পিসিআর পরীক্ষার মাধ্যমে কুয়েত গমনেচ্ছু ব্যক্তিকে করোনাভাইরাস মুক্ত নিশ্চিত করেই কুয়েতে প্রবেশের নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সিভিল এভিয়েশন। বাংলাদেশিদের জন্য পিসিআর পরীক্ষাটি অবশ্যই কুয়েত দূতাবাস কর্তৃক অনুমোদিত মেডিকেল সেন্টার থেকে হতে হবে। করোনাভাইরাস মুক্ত সার্টিফিকেট ব্যতীত যারা কুয়েতে প্রবেশের চেষ্টা করবেন, তাদেরকে ফিরতি ফ্লাইটে দেশে পাঠিয়ে দেয়া হবে। কুয়েতের স্বাস্থ্য বিষয়ক মন্ত্রণালয় বলেছে, সেখানে নতুন করে কোন করোনাভাইরাস আক্রান্তের খবর পাওয়া যায়নি। সেখানে মোট ৩১০০ মানুষের এই পরীক্ষা করা হয়েছে। তার মধ্যে ৫৬ জনকে আক্রান্ত পাওয়া গেছে। এর মধ্যে বেশির ভাগই ফিরেছেন ইরান থেকে। ওদিকে এপ্রিল থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত অনুষ্ঠেয় বহুমুখী স্পোর্টস বিষয়ক টুর্নামেন্ট জিসিসি গেমস স্থগিত করেছে কুয়েত। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে চিড়িয়াখানা। স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. বাসেল আল সাবাহ শেখ বলেছেন, আক্রান্ত এলাকা থেকে ফিরে যাওয়া লোকজনকে রাখার জন্য চতুর্থ একটি কোয়ারেন্টাইন প্রস্তুত করছে তারা। এখানে ১৪ দিন পর্যন্ত কোয়ারেন্টাইনে রাখা হবে লোকজনকে।

আন্তর্জাতিক পাতার আরো খবর