সোমবার, এপ্রিল ৬, ২০২০
প্রকাশ : 2020-01-20

নিউজিল্যান্ড সফরে অনিশ্চিত ধাওয়ান

২০জানুয়ারী,সোমবার,ক্রীড়া ডেস্ক,চট্টগ্রাম,নিউজ একাত্তর ডট কম: অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে তিন ম্যাচের একদিনের সিরিজ ২-১ ব্যবধানে নিজেদের করে নিয়েছে ভারত। তবে শঙ্কা দেখা দিয়েছে ভারতের তারকা ব্যাটসম্যান শিখর ধাওয়ানকে নিয়ে। বেঙ্গালুরুর তৃতীয় ওয়ানডেতে বাঁ-কাঁধে চোট পেয়ে ব্যাট করা তো দূরে থাক নিউজিল্যান্ড সফরেও অনিশ্চিত হয়ে পড়েছেন তিনি। নিউজিল্যান্ড সফরের জন্য সোমবার রাতে বেঙ্গালুরু থেকেই রওনা দিচ্ছে ভারতীয় দল। ধাওয়ানেরও যাওয়ার কথা ছিল। তিনি ভারতের টি-টোয়েন্টি এবং ওয়ানডে দলে রয়েছেন। প্রথমে টি-টোয়েন্টি হবে, তারপরে ওয়ানডে। যা পরিস্থিতি, টি-টোয়েন্টি সিরিজে অন্তত ধাওয়ানের পক্ষে খেলা কঠিন। ওয়ানডেতেও পারবেন কি না, নিশ্চয়তা নেই। তাঁর জায়গায় পরিবর্ত ওপেনার বেছে নিয়ে দু এক দিনের মধ্যে নিউজিল্যান্ড পাঠানোর ব্যবস্থা করতে হবে। রবিবার বেঙ্গালুরুতে সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে অস্ট্রেলীয় ইনিংস চলার সময় পঞ্চম ওভারেই ঝাঁপিয়ে পড়ে বল ধরতে গিয়ে কাঁধে চোট পান ধাওয়ান। কভার পয়েন্টে অ্যারন ফিঞ্চের ড্রাইভ ধরতে গিয়ে বাঁ-কাঁধের উপরে পড়েন তিনি। তখনই তাঁর চোখমুখ দেখে বোঝা যাচ্ছিল বেশ গুরুতর চোট পেয়েছেন। ফিজিও নীতিন পটেল ছুটে আসেন। অধিনায়ক কোহলিকেও বেশ উদ্বিগ্ন দেখাচ্ছিল। ফিজিও তখনই বাইরে নিয়ে চলে যান ধাওয়ানকে। জানা যায়, সঙ্গে-সঙ্গেই তাঁকে হাসপাতালে এক্স-রে করতে নিয়ে যাওয়া হয়। ধাওয়ান আর ফিল্ডিং করেননি, দীর্ঘক্ষণ তাঁর ব্যাপারে কোনও খোঁজও পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে যখন তিনি ড্রেসিংরুমে ফেরেন, টিভি-তে দেখা যায়, স্লিং ঝোলানো রয়েছে। ধাওয়ানকে ব্যাট করতে নামানো যায়নি। রাজকোটে পাঁচ নম্বরে নেমে ৫২ বলে ৮০ করা কে এল রাহুলকে ওপেন করতে পাঠানো হয় রোহিত শর্মার সঙ্গে। রাজকোটের সেই ম্যাচেও চোট পেয়েছিলেন ধাওয়ান। পাঁজরে এসে লাগে প্যাট কামিন্সের বল। চোট নিয়েই ব্যাট করে যান তিনি। এই নিয়ে গত কয়েক মাসে তৃতীয়বার চোটের কারণে ছিটকে যাচ্ছেন তিনি। বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সেঞ্চুরি করেও আঙুলের হাড়ে চিড় ধরায় বাকি টুর্নামেন্টের বাইরে চলে যান। তারপর গত নভেম্বরে বাঁ হাঁটুতে অনেকটা কেটে গিয়ে সেলাই পড়ে। তার ফলে ওয়েস্ট ইন্ডিজে যেতে পারেননি।