প্রকাশ : 2020-09-23

নারী উদ্যোক্তাদের জন্য বিকল্প অর্থায়নের দাবি বিল্ডের

২৩সেপ্টেম্বর,বুধবার,অর্থনীতি ডেস্ক,নিউজ একাত্তর ডট কম: নারী উদ্যোক্তা ও সুবিধাবঞ্চিত কুটির, ক্ষুদ্র, ছোট ও মাঝারি শিল্প (সিএমএসএমই) প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য বিকল্প অর্থায়ন ব্যবস্থা করার দাবি জানিয়েছে দেশের শীর্ষস্থানীয় পাবলিক-প্রাইভেট ডায়ালগ প্ল্যাটফর্ম বিজনেস ইনিশিয়েটিভ লিডিং ডেভেলপমেন্ট (বিল্ড)। ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড সেন্টারের (আইটিসি) সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে গতকাল অ্যাকসেস টু এমএসএমইজ অ্যান্ড উইম্যান এন্ট্রাপ্রেনিউরস টু স্টিমুলাস প্যাকেজ শীর্ষক ভার্চুয়াল পলিসি ডায়ালগ থেকে এ দাবি জানানো হয়। অনুষ্ঠানে সম্মানীয় অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের এসএমই অ্যান্ড স্পেশাল প্রোগ্রাম ডিপার্টমেন্টের নির্বাহী পরিচালক আবু ফারাহ মো. নাসের। প্যানেল আলোচনায় সভাপতিত্ব করেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব শরিফা খান। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন বিল্ডের চেয়ারপারসন আবুল কাসেম খান। পলিসি ডায়ালগে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিল্ডের গবেষণা সহযোগী বেলালুর রহমান। নারী উদ্যোক্তা ও সুবিধাবঞ্চিত সিএমএসএমইদের জন্য বিকল্প অর্থায়নের গুরুত্ব তুলে ধরে তিনি বলেন, বিভিন্ন জরিপে দেখা যাচ্ছে সিএমএসএমইরা প্রণোদনা প্যাকেজের নির্দেশনার বিষয়ে সচেতন নয়। সেক্ষেত্রে তথ্যের প্রবেশাধিকার সহজ করতে বাংলাদেশ ব্যাংক বাণিজ্যিক ব্যাংক ও ক্ষুদ্রঋণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোকে স্পষ্ট নির্দেশনা প্রদান করতে পারে। সর্বোচ্চ সংখ্যক নারী উদ্যোক্তাকে প্রণোদনা প্যাকেজের আওতায় আনতে প্রণোদনা প্যাকেজের আকার বৃদ্ধির সুপারিশ করে বিল্ড। এছাড়া ঋণ পরিশোধের সময়সীমা বৃদ্ধিরও সুপারিশ করে প্রতিষ্ঠানটি। আবু ফারাহ মো. নাসের বলেন, শুধু ২০ হাজার কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজই নয়, সিএমএসএমইদের জন্য আরো বেশকিছু প্যাকেজ রয়েছে। যদি কোনো বাণিজ্যিক ব্যাংক পূর্বের ঋণ পরিশোধের ভিত্তিতে কোনো নারী উদ্যোক্তাকে প্রণোদনা প্যাকেজ থেকে ঋণ প্রদানে অস্বীকৃতি জানায়, তবে তারা যেন ব্যাংকের নির্দিষ্ট হটলাইন নম্বরে যোগাযোগ করেন। অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক এমএ বাকি খলিলী, বেসিসের সভাপতি সৈয়দ আলমাস কবির, এসএমই ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. শফিকুল ইসলাম, আইটিসির শিট্রেডস ইনিশিয়েটিভসের কান্ট্রি ডিরেক্টর তানভির আহমেদ, বিল্ডের সিইও ফেরদাউস আরা বেগম বক্তব্য দেন।

অর্থনীতি পাতার আরো খবর